বাংলাদেশ থেকে জাপানে যেতে আগ্রহীদের জন্যে সুখবর

দেশযোগ ডেস্ক: বাংলাদেশ থেকে জাপানে যেতে আগ্রহীদের জন্যে সুখবর। জাপানে কাজ ও অভিবাসনে আগ্রহীদের জন্যে সুখবর দিয়েছে দেশটির সরকার। আজ (২ নভেম্বর) এ বিষয়ে বিল পাশের মাধ্যমে বিদেশি শ্রমিক নেওয়া সংক্রান্ত এতো দিনের আলোচনাকে একটি বাস্তব রূপ দিতে যাচ্ছে সূর্যোদয়ের দেশটি।

সে দেশে নার্স, নির্মাণ শ্রমিক, কৃষি শ্রমিক ইত্যাদি কাজে লোকবলের অভাব হওয়ায় বিদেশিদের জন্যে দরজা খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। নতুন এই সিদ্ধান্তের মাধ্যমে জাপান তার দীর্ঘদিনের রক্ষণশীল নীতিমালায় একটি গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন আনলো।

প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) সরকার জাপান পার্লামেন্টের চলতি অধিবেশনে বিলটি পাশ করিয়ে নেওয়ার মাধ্যমে দেশটির বর্তমান অভিবাসন নীতিতে পরিবর্তন আনার পথ পরিষ্কার করলেন। সংবাদমাধ্যম দ্য জাপান টাইমস আজ এক প্রতিবেদনে জানায়, আগামী এপ্রিল থেকে এই নতুন কার্যক্রম শুরু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

তবে বিলটি পাশ করা নিয়ে তাড়াহুড়ো করায় বিরোধী দল ও ক্ষমতাসীন দলের অনেকের সমালোচনার মুখে পড়েছে এটি। বিশেষ করে, কতোজন শ্রমিক জাপানে নেওয়া হবে সে বিষয়ে বিলটিতে স্পষ্ট করে কিছু বলা হয়নি।

আইনমন্ত্রী তাকাশি ইয়ামাশিতা পার্লামেন্ট কমিটিকে গতকাল বলেন, সরকার বিদেশি শ্রমিকদের সংখ্যা নির্ধারণ করতে কোনো আগ্রহ দেখায়নি। তার মতে, দেশের ১৪টি ক্ষেত্রে বিদেশি শ্রমিক নেওয়ার কথা বিলটিতে উল্লেখ করা হলেও সেই ক্ষেত্রগুলো সম্পর্কে বিস্তারিত কিছু বলা হয়নি।

খবরে প্রকাশ, প্রধানমন্ত্রী আবের সরকার মূলত শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর চাহিদা মেটানোর জন্যেই এমন পদক্ষেপ নিচ্ছেন। তার প্রশাসনের এমন সিদ্ধান্তের মাধ্যমে তিনি আগামী নির্বাচনে ভালো ফল করারও ছক আঁকছেন।

প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরের একটি সূত্রের বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যমটি আরও জানায়, “তীব্র শ্রমিক সংকটের কারণে এমন নীতিমালা গ্রহণ করা প্রয়োজন যা দেশটির ভোটারদের কাছে আবেদন রাখবে।”

উল্লেখ্য, এতোদিন জাপান শুধু দক্ষ শ্রমিকদের গ্রহণ করতো। এই নতুন সিদ্ধান্তের ফলে স্বল্প দক্ষ শ্রমিকরাও অর্থনৈতিকভাবে সমৃদ্ধ এই দেশটিতে প্রবেশের সুযোগ পাবেন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *